• বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ১১:৩৬ অপরাহ্ন

৭ কোটি টাকার সেতুতে উঠতে হয় মই দিয়ে

স্বাধীন ভোর ডেস্ক / ১০২ বার দেখা হয়েছে
প্রকাশের সময় শনিবার, ২৬ আগস্ট, ২০২৩

সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি:
ব্রীজের নির্মাণ কাজ শেষ হয়েছে ৪ বছর আগে। কিন্তু দুই পাশের সংযোগ সড়ক না থাকায় সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় ৭ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত সেতুটি স্থানীয়দের কোনো কাজে আসছে না। বাঁশের মই বেয়ে ঝুঁকি নিয়ে সেতু পারাপার হচ্ছে ১৫ থেকে ২০ গ্রামের হাজার হাজার মানুষ। এতে সুবিধার চেয়ে অসুবিধাই বেড়েছে জনসাধারনের। স্থানীয় সরকার প্রকৌশলী কর্মকর্তা জানিয়েছেন, আগামী ৩ মাসের মধ্যেই এই সমস্যা সমাধান করা হবে। সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়া উপজেলার বাড়ইয়া গ্রাম। স্বাধীনতার পর থেকে উল্লাপাড়া-কালিগঞ্জ অঞ্চলের যোগাযোগের একমাত্র সড়ক বাড়ইয়া খেয়াঘাট এলাকায় সেতু নির্মাণের দাবি করে আসছিল এলাকাবাসী। অবশেষে ২০১৯ সালে বিল সুর্য নদীর উপর ৭ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মাণ করা হয় এই সেতুটি। কিন্তু নির্মাণের ৪ বছর পার হলেও ভূমি অধিগ্রহন জটিলতায় দুই পাশে সংযোগ সড়ক স্থাপন করতে না পাড়ায় ভোগান্তি বেড়েছে আশেপাশের অন্তত ১৫টি গ্রামের মানুষের। বাড়ইয়া, ঝিকিরা, কালিগঞ্জসহ বেশ কয়েকটি এলাকার মানুষেরা বাঁশ ও মই বেয়ে উঠে সেতু পারাপার হয়। এতে বেশী ভোগান্তিতে পড়েছে নারী-শিশু শিক্ষার্থী ও বয়োজোষ্ঠরা। বর্তমানে সেতুটি কোনো কাজেই আসছে না। ফলে প্রতিদিন জীবনের ঝুঁকি নিয়ে সেতুর দুই পাশের মই বেয়ে পার হতে হচ্ছে তাদের। দ্রুত সেতুর দুই পাশে সংযোগ সড়ক নির্মাণ করে জনসাধারন ও যান চলাচলের ব্যবস্থা করার দাবী জানিয়েছেন স্থানীয়রা। আর জেলা স্থানীয় প্রকৌশলী কর্মকর্তা মোঃ শফিকুল ইসলাম জানান, এই ব্রীজের দুই পাশে সংযোগ সড়ক নির্মানের জন্য ভূমি অধিগ্রহন জটিলতা ছিল। ভূমি জরিপ ও অধিগ্রহনের কাজ সম্পন্ন হয়েছে। আগামী ৩ মাসের মধ্যে কাজ শেষ করার কথাও জানান তিনি।

 


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও সংবাদ